• আজ ৪ঠা বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

আব্বুর পিঠ থেকে এখনো রক্ত যাচ্ছে: বাবার জন্য দোয়া চাইলেন আশরাফ মাহদী

| ডেস্ক এডিটর ৪:১০ পূর্বাহ্ণ | ফেব্রুয়ারি ১১, ২০২১ ক্যাম্পাস

 

আব্বুর পিঠ থেকে এখনো রক্ত যাচ্ছে: বাবার জন্য দোয়া চাইলেন আশরাফ হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশ এর সহকারী মহাসচিব ও লালবাগ জামিয়ার সিনিয়র মুহাদ্দিস মাওলানা মাওলানা জসিমউদদীন এর উপর হামলায় খুব বেশি আঘাত পেয়েছেন বলে জানিয়েছেন পূত্র মাওলানা আশরাফ মাহদি। বাবার জন্য দেশবাসীর কাছে দোয়াও চেয়েছেন তিনি।

 

আজ মঙ্গলবার (৯ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে পুরান ঢাকার লালবাগ মাদরাসা থেকে বাসায় ফেরার পথে তার উপর এ অজ্ঞাত হামলা হয়। এ সময় তাকে পিছন দিক থেকে ছুরিকাঘাত করে হামলাকারীরা। মারাত্মকভাবে আহত হোন তিনি। বর্তমানে আহত অবস্থায় ঢাকা মেডিক্যালের ইমার্জেন্সি বিভাগে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

 

এ বিষয়ে পূত্র মাওলানা আশরাফ মাহদি ফেসবুক স্ট্যাটাসে বলেন, আব্বুর পিঠ থেকে এখনো রক্ত যাচ্ছে। ঢাকা মেডিকেলে চিকিৎসা চলছে। রক্ত দেওয়া হচ্ছে। আঘাত খুব বেশি গভীর৷ মেরুদন্ডের বাম দিকে প্রায় আধ হাত। কিডনিতে টার্গেট করেছিল মনে হচ্ছে। ঘন্টা খানেক পেরিয়ে যাওয়ার পরও রক্ত এখনো বন্ধ হয়নি। যারাই ক্ষতস্থানটি দেখছে বলছে, ধারালো অস্ত্র ব্যবহার করে পেশাদার কেউ এ কাজ করেছে। আব্বুর জন্য সবার কাছে একটু খাসভাবে দোয়া চাই।

 

হামলার পর হাসপাতালে নেওয়ার সময়ের একটি ভিডিও ইতোমধ্যে সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়েছে। তাতে দেখা যায়, হেফাজত নেতা মাওলানা জসিমউদ্দীনের পেছনে থেকে অনবরত রক্ত ঝড়ছে। রক্তে লাল হয়ে গিয়েছে তার শরীরের পেছনের অংশ। এরপর একটি সিএনজি করে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয় তাকে।

 

মাওলানা জসিমউদ্দীন মুফতি ফজলুল হক আমিনী রহ. এর জামাতা ও লালবাগ মাদরাসার শূরা সদস্য।

 

এদিকে হেফাজতে ইসলাম কেন্দ্রীয় ও ঢাকা মহানগর নেতৃবৃন্দ আলাদা আলাদা বিবৃতিতে এ ঘটনার তীব্র জানিয়ে অবিলম্বে দোষীদের গ্রেপ্তার করে আইনের আওতায় আনার দাবি জানিয়েছেন।

 

তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের মহাসচিব, ঢাকা খিলগাঁও মাখযানুল উলুম মাদরাসার মহাপরিচালক আল্লামা নুরুল ইসলাম জিহাদী বলেন, আমি ফোনে কথা বলে খবর নিয়েছি। ছুরিকাঘাতে আহত মাওলানা জসিমউদদীনের বর্তমান অবস্থা খুবই গুরুতর এবং আশংকাজনক। সরকার প্রশাসন সহ সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষকে মাওলানা জসিমউদদীনের উন্নত চিকিৎসা নিশ্চিত করার আহবান করছি।

 

হেফাজত মহাসচিব আরো বলেন, একটি কুচক্রী মহল উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে ওলামায়ে কেরামের উপর হামলা করে দেশের শান্তিপূর্ণ পরিবেশকে নষ্ট করতে চাচ্ছে। ওলামায়ে কেরামের উপর হামলার ঘটনা দেশের লক্ষ কোটি তৌহিদি জনতা কখনো বরদাশত করবে না।

 

হুশিয়ারী উচ্চারণ করে হেফাজত মহাসচিব আল্লামা নুরুল ইসলাম জিহাদী বলেন, ওলামায়ে কেরামের উপর হামলার পরিণতি শুভ হবে না। মাওলানা জসিমউদদীনের সু-চিকিৎসা নিশ্চিত করে অনতিবিলম্বে হামলাকারীদের খোঁজে বের বিচারের আওতায় আনতে হবে। এবং ভবিষ্যতে যেন এমন ঘটনার পুনরাবৃত্তি না ঘটে সে জন্য সরকার, প্রশাসন সহ সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষকে যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে।

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন সময়ের সংবাদে । আজই পাঠিয়ে দিন Smersngbd.com@gmail.com মেইলে - Smersngbd.com@gmail.com